মেডিকেলের প্রশ্নপত্র সংরক্ষণে ডিজিটাল প্রক্রিয়া : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, আগামী ৬ অক্টোবর অনুষ্ঠেয় মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষার প্রশ্নপত্র সংরক্ষণে ডিজিটাল প্রক্রিয়া অনুসরণ করা হচ্ছে। তাই প্রশ্নপত্র ফাঁসের গুজবে কেউ যেন কান না দেয়।

মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষা নিয়ে আজ বুধবার সচিবালয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানান, প্রশ্নপত্র সংরক্ষণে ডিজিটাল প্রক্রিয়া অনুসরণ করা হচ্ছে। পরীক্ষার কেন্দ্রে প্রশ্নপত্র বিতরণের আগপর্যন্ত প্রশ্নপত্রে কেউ হাত দিলে বা প্রশ্নপত্র বহন করা ট্রাঙ্কের তালায় কেউ স্পর্শ করলে সেটা মনিটরিং কমিটির চোখে ধরা পড়বে।

মন্ত্রী আরো জানান, পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে প্রশ্নপত্র তৈরি, পরীক্ষা অনুষ্ঠান, খাতা মূল্যায়ন ও ফল প্রকাশের জন্য উচ্চ পর্যায়ের একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। এই কমিটিকে পর্যবেক্ষণ করার জন্য বিশেষজ্ঞ আরেকটি কমিটি রয়েছে।

নাসিম জানান, আগামী ৬ অক্টোবর মেডিকেলের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এবারের পরীক্ষায় অংশ নিতে আবেদন ফরম পূরণ করেছেন ৮২ হাজার ৮৫৬ জন। মোট ২০টি কেন্দ্রে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এর মধ্যে ঢাকায় পাঁচটি ও অন্যগুলো ঢাকার বাইরে। পরীক্ষায় নয় হাজার ৩৪৩টি আসনের মধ্যে সরকারি মেডিকেলে তিন হাজার ৩১৮টি ও প্রাইভেট মেডিকেলে ছয় হাজার ২৫টি।

সংবাদ সম্মেলনে ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, সুস্থ পরিবেশে পরীক্ষা অনুষ্ঠানের জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পক্ষ থেকে সর্বাত্মক সহযোগিতা করা হবে।

সংবাদ সম্মেলনের আগে সচিবালয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা ও পরীক্ষা কমিটির সদস্যদের সঙ্গে বৈঠক করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

BIGTheme.net • Free Website Templates - Downlaod Full Themes