‘রোহিঙ্গাদের নিয়ে নোয়াখালীবাসীর আতংকিত হওয়ার কারণ নেই’

শুক্রবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৭: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, ভাষাণ চরকে একটি সুন্দর আবাসন এলাকা হিসেবে গড়ে তোলা হবে। এজন্য বাংলাদেশ নৌবাহিনীকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। সব কিছুই এখনো পরিকল্পনা পর্যায়ে রয়েছে। শিক্ষা, চিকিৎসা ও আবাসনসহ সকল আধুনিক সুযোগ-সুবিধা নিয়ে ভাষাণ চরে শরণার্থী শিবির গড়ে তোলা হবে।

বৃহস্পতিবার নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার ভাষাণ চর পরিদর্শন শেষে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে মস্ত্রী এ কথা বলেন। সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, নোয়াখালীবাসীর রোহিঙ্গাদের বিষয়ে আতংকিত হওয়ার কারণ নেই। রোহিঙ্গাদের উপর প্রশাসনের শক্ত নজরদারী থাকবে। তবে সবকিছু এখনো পরিকল্পনা পর্যায়ে রয়েছে। কাজ শেষ হলে তাদের এখানে আনা হবে।

মিয়ানমারের নির্যাতিত রোহিঙ্গা মুসলমান শরণার্থীদের পুনর্বাসনের জন্য নির্ধারিত নোয়াখালীর ভাষাণ চর পরিদর্শন করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। বিকেলে তিনি হেলিকপ্টার যোগে ভাষাণ চরে নামেন এবং শরণার্থী প্রকল্পের বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখেন।

এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজির আহমেদ, পুলিশের চট্রগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি ড. মনিরুজজামান, প্রকল্প পরিচালক ক্যাপ্টেন আমিনুল ইসলাম খান, স্বরাষ্ট্র সচিব কামাল উদ্দিন আহমেদ, কোস্টগার্ডের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল আবুল হোসেন, জেলা প্রশাসক মাহবুব আলমগীর তালুকদার ও পুলিশ সুপার ইলিয়াছ শরীফসহ প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

BIGTheme.net • Free Website Templates - Downlaod Full Themes