৩ বছরেও সংস্কার হয়নি ব্রিজটি

0
8

লালমনিরহাটের সীমান্তবর্তী পাটগ্রাম উপজেলায় একটি ব্রিজের অভাবে তিন বছর ধরে পাঁচ গ্রামের প্রায় ২০ হাজার মানুষ চরম দুর্ভোগ পোহাচ্ছে। গত বন্যায় ভেঙে যাওয়া ব্রিজটি তিন বছরেও সংস্কার হয়নি। ব্রিজটির দু’পাশই ভেঙে যাওয়ার কারণে ঝুঁকি নিয়ে পারাপার করছেন এলাকাবাসী।

জানা গেছে, পাটগ্রাম উপজেলার জগতবেড় ইউনিয়নের আশোয়ার পাড় চেনাকেটা নদীর ওপর ২০১৬ সালে প্রায় ১০ লাখ টাকা ব্যয়ে ব্রিজটি নির্মাণ করে স্থানীয় প্রকৌশলী বিভাগ। নির্মাণের ১ বছরের মাথায় ২০১৭ সালের বন্যায় ব্রিজের দুই অংশ ভেঙে পড়ে। এতে দুর্ভোগে পড়েন ওই এলাকার পাঁচ গ্রামের ২০ হাজার মানুষ। ওই ব্রিজ দিয়েই আশোয়ার পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যায় শতাধিক শিক্ষার্থী।

সরেজমিনে ঘুরে দেখা গেছে, ব্রিজের দুই অংশ ভেঙে পড়ে আছে। স্থানীয় লোকজন ব্রিজের নিচ দিয়ে পারাপার করছেন। এলাকাবাসীর দাবি ব্রিজটি দ্রুত সংস্কার করা হোক। কারণ এই একটি ব্রিজের কারণে এলাকার কয়েক হাজার মানুষকে প্রতিদিন দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

স্থানীয় তফিজার মিয়া (৪০) বলেন, বন্যায় রাস্তা ও ব্রিজটি ভেঙে যাওয়ার তিন বছর পেরিয়ে গেলেও সংস্কারের কোনো উদ্যোগ নয়া হয়নি। আমরা কষ্ট করে পারাপার করছি।

জগতবেড় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান নবিবর রহমান বলেন, এ বছর ইউনিয়ন পরিষদের এলজিএসপির বরাদ্দ এলে ব্রিজটি সংস্কার করা হবে।

পাটগ্রাম উপজেলা প্রকৌশলী আবু তৈয়ব মো. শামসুজ্জামান ব্রিজটির বর্তমান অবস্থার কথা স্বীকার করে বলেন, বরাদ্দ আবেদন করেছি। বরাদ্দ এলে দ্রুত মেরামত করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here