শেখ হাসিনা দেশকে জেতানোর লড়াইয়ে আছেন: সাকিব

0
5

‘বর্তমান সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পরিবারের সবাইকে হারিয়ে দেশকে জেতানোর লড়াইয়ে আছেন। বাংলাদেশ এখন তাঁর পরিবার। সবাইকে নিয়ে সবার ভালো থাকার জন্য কাজ করে যাচ্ছেন। বিশেষ করে তরুণদের নিয়ে। সবক্ষেত্রে সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ার নীতি গ্রহণ করেছেন তিনি। সেখানে চাই তোমার সক্রিয় অংশগ্রহণ। এ অগ্রযাত্রা আরও এগিয়ে নিতে চাই তোমার অংশগ্রহণ।’ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এভাবেই তরুণদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পাশে থাকার আহ্বান জানিয়েছেন বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক সাকিব আল হাসান।

জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে তৈরি এই ভিডিওচিত্রে সাকিব বলেন, ‘সবাইকে ভালো রাখা ও সবাইকে নিয়ে এগিয়ে যাওয়ার এক দুর্বার যাত্রায় এখন আমরা আছি। বিদ্যুতে, শিক্ষায়, খাদ্যে, স্বাস্থ্যে, নারীর ক্ষমতায়নে, সামাজিক ও মানব উন্নয়নে তো বটেই, অবকাঠামো, যোগাযোগ ও ডিজিটাল উন্নয়নে বাংলাদেশ এখন বিশ্বের উদাহরণ হতে চলেছে।’

দেশকে মায়ের সঙ্গে তুলনা করে তাঁর বক্তব্য, ‘এ দেশকে আমরা মা বলি। নিজের মাকে নিয়ে আমরা যেভাবে ভাবি, দেশকে নিয়ে কি আমরা সেভাবে ভাবি? অথচ, দেশ আমাদের নিয়ে ভাবছে। নজর রাখছে ভালো-মন্দের। তার ভালো থাকা মানে আমাদেরও ভালো থাকা। আর সবার ভালো থাকা মানে দেশের ভালো থাকা। দেশকে নিয়ে ভাবার সময় এসেছে।’

ভিডিও চিত্রটি শুরু হয়েছে টেস্ট মর্যাদা পাওয়ার প্রাথমিক দিনগুলির কঠিন সংগ্রামের কথা উল্লেখ করে, ‘১৯৯৯ থেকে ২০০৪ সাল পর্যন্ত ৭২টি ম্যাচের বেশির ভাগই আমরা হেরেছিলাম। কিন্তু আমরা জিততে চেয়েছিলাম। এটা আমাদের কাছে কেবল খেলা নয়, এটা আমাদের দেশ। তাই আমরা ঘুরে দাঁড়াতে পেরেছিলাম।’

তরুণদের উদ্বুদ্ধ করতে গিয়ে নিজের কথা বলেছেন সাকিব, ‘আমি যখন ক্রিজে গিয়ে দাঁড়াই, তখন আমার সঙ্গে থাকে বাংলাদেশ। আমি যখন শুরু করেছিলাম, তখন আমার বয়স ছিল ১৯। আজ যারা তরুণ, আমি নিশ্চিত জানি প্রত্যেকেরই নিজের মতো করে স্বপ্ন আছে। ব্যক্তির স্বপ্নকে দেশের স্বপ্ন করতে হয়। এগিয়ে আসতে হয়, তৈরি করতে সঠিক পথ। আমি কোনো সুপারম্যান নই। আমি এ দেশেরই একজন সাধারণ ছেলে।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বর্তমান সরকারের উন্নয়ন কর্মকাণ্ডকে আরও এগিয়ে নিতে তরুণদের সক্রিয় সমর্থন চাওয়ার মধ্য দিয়ে সাকিব এই ভিডিও চিত্রটি শেষ করেছেন। তিনি বলেছেন, ‘এ অগ্রযাত্রা আরও এগিয়ে নিতে চাই তোমার সক্রিয় সমর্থন। আমার বিশ্বাস আমরা দাঁড়ালে হারবে না বাংলাদেশ। কারণ তরুণেরাই আগামীর বাংলাদেশ। এবার তোমার পালা।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here