হোয়াটসঅ্যাপের ১.৩ লাখ অ্যাকাউন্ট ব্লক

0
14

হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে পর্নোগ্রাফি ছড়ানোয় ভারতে ১.৩ লাখ অ্যাকাউন্ট ব্লক করেছে সংস্থাটি। বিশ্বের সব দেশেই চাইল্ড পর্নোগ্রাফি নিয়ে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। কিন্তু এ প্লাটফর্ম ব্যবহার করে যাতে কেউ পর্নোগ্রাফি সমাজে ছড়িয়ে দিতে না পারে সে জন্যই ফেসবুকের এ সংস্থার এমন উদ্যোগ।

ভারতীয় গণমাধ্যমে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে জানা যায়, গত ১০ দিনে প্রায় ১ লাখ ৩০ হাজার অ্যাকাউন্ট ব্লক করেছে হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ। এ অ্যাকাউন্টগুলোকে মেসেজিং প্ল্যাটফর্ম থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে জানায় হোয়াটসঅ্যাপ।

এ ছাড়া ব্লক করে দেওয়া ওই সব অ্যাকাউন্ট সম্পর্কিত তথ্য আমেরিকার ‘ন্যাশনাল সেন্টার ফর মিসিং অ্যান্ড এক্সপ্লয়টেড চিলড্রেন’ সংস্থাকে দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে সংস্থা।

হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, শিশুদের যৌন নির্যাতনের ব্যাপারে হোয়াটসঅ্যাপের মনোভাব কঠোর। তাই এ কাজ রুখতে আমরা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাসহ সর্বোচ্চ স্তরের প্রযুক্তি ব্যবহার করছি। এ নিয়ে ভারতসহ বিশ্বের সব দেশের আইন প্রণয়নকারী সংস্থার অনুরোধে আমরা সাড়া দিতে প্রস্তুত। এ সমস্যা রুখতে সব প্রযুক্তি সংস্থা একসঙ্গে কাজ করতে হবে।

হোয়াটসঅ্যাপ যেভাবে কাজ করে:

হোয়াটসঅ্যাপ ‘অ্যান্ড টু অ্যান্ড এনক্রিপশন’ পদ্ধতিতে কাজ করে। তাই এক ব্যবহারকারী অন্য ব্যবহারকারীকে কী বার্তা পাঠাল তা কর্তৃপক্ষের পক্ষে জানা সম্ভব নয়। তাই হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের মাধ্যমে যারা চাইল্ড পর্নোগ্রাফির আদান-প্রদান করা অ্যাকাউন্ট চিহ্নিত করেছে সংস্থা। এ জন্য ‘ফটোডিএনএ’ পদ্ধতি ব্যবহার করেছে তারা। আপত্তিকর ছবিকে নিয়ন্ত্রণ করার জন্য এই পদ্ধতি ব্যবহার করে ফেসবুকও।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here