ক্ষমা চাওয়া সেই ম্যাজিস্ট্রেটের বিরুদ্ধে শুনানি আজ

0
3

৬ বছরের শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার হওয়া বরিশালের বাকেরগঞ্জের ৪ শিশুকে যশোর শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশদাতা সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট এনায়েত উল্লাহর বিরুদ্ধে কেন ব্যবস্থা নেয়া হবে না, তা জানতে চেয়ে জারি করা রুলের ওপর শুনানির জন্য আজ দিন ধার্য রয়েছে।

গেল ১১ অক্টোবর বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মহিউদ্দিন শামীমের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ রুল জারি করেন।

একইসঙ্গে মামলার পরবর্তী শুনানি জন্য আগামী ২২ অক্টোবর দিন ধার্য করেন হাইকোর্ট। এছাড়া ওই চার শিশুকে নিরাপদে বাড়ি পৌঁছে দেয়ারও আদেশ দেন হাইকোর্ট।

এর আগে ওই চার শিশুকে কারাগারে পাঠানোর ঘটনায় এনায়েত উল্লাহ হাইকোর্টে নিঃশর্ত ক্ষমা চেয়েছেন। রবিবার বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মহি উদ্দিন শামীমের হাইকোর্ট বেঞ্চে হাজির হয়ে লিখিতভাবে ক্ষমা প্রার্থনার আবেদন করেন তিনি।

উল্লেখ্য, ৬ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে চার শিশুর বিরুদ্ধে গত ৬ অক্টোবর মামলা করা হয়। পরে তাদের গ্রেফতার করে পুলিশ। এরপর ৭ অক্টোবর জেলার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট এনায়েত উল্লাহ এক আদেশে ওই চার শিশুকে যশোর পুলেরহাট শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রে পাঠানোর আদেশ দেন। পরে তাদের যশোর পুলেরহাট শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রে পাঠানো হয়।

এ নিয়ে একটি বেসরকারি টেলিভিশনে সংবাদ প্রচারিত হয়। এই সংবাদ নজরে এলে বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মহি উদ্দিন শামীম ভার্চুয়াল আদালত বসান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here