এখনও পুরোদস্তুর রাজনীতি শুরু করিনি : মাশরাফি

0
10

বাংলাদেশের জাতীয় সংসদ নির্বাচনের চলতি মেয়াদে প্রথমবারের মতো অংশ নিয়ে বাজিমাত করেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। নিজ জন্মস্থান নড়াইল থেকে পেয়েছেন সংসদ সদস্যের পদ।

সাংসদ জীবনের প্রথম পাঁচ মাসে এরই মধ্যে বেশ কিছু ইতিবাচক খবরে শিরোনাম হয়েছেন মাশরাফি। একটি স্থানীয় হাসপাতালে ঝটিকা সফরে গিয়ে তিনি কর্তব্যরত ডাক্তারকে অনুপস্থিত দেখে, সঙ্গে সঙ্গে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়ার ঘোষণা দিয়ে তিনি বুঝিয়ে দেন কোনো ভুল কাজ একদমই সহ্য করা হবে না। এছাড়া স্থানীয় প্রশাসনকেও বলেছেন কৃষকের কাছ থেকে সরাসরি ধান কেনার জন্য, যাতে করে ন্যায্য মূল্য পায় কৃষকরা।

মাশরাফির এসব কর্মকাণ্ড তাকে সংসদ সদস্য হিসেবেও করে তুলেছে সকলের প্রিয়। তবে মাশরাফি জানিয়েছেন এখনো তিনি সে অর্থে রাজনীতি শুরু করেননি। বিশেষ করে বিশ্বকাপকে সামনে রেখে তার ধ্যানজ্ঞান এখন শুধুই ক্রিকেট।

নির্বাচনে অংশ নেয়ার আগেই তিনি দেশের সংবাদমাধ্যমে জানিয়েছিলেন যতদিন ক্রিকেট খেলবেন ততদিন তার মনোযোগ থাকবে শুধুই বাইশ গজে। তবু বিশ্বকাপ খেলতে গিয়ে তাকে মুখোমুখি হতে হয় রাজনীতি ও ক্রিকেট জীবনের ব্যাপারে।

জনপ্রিয় ক্রিকেটভিত্তিক ওয়েবসাইট ক্রিকইনফোকে মাশরাফি বলেন, ‘আমার পূর্ণ মনোযোগ এখন ক্রিকেটের দিকেই। আমি এখনো সে অর্থে রাজনীতি শুরু করিনি, রাজনীতিতে আমার সম্পৃক্ততাও এখনো সে পর্যায়ে যাইনি। কিছু বিশেষ কাজ ছাড়া এটিতে আমার তেমন সময় দেয়ার প্রয়োজন পড়ে না। আমি এখনো নিজেকে ক্রিকেটার পরিচয় দিতেই স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি। রাজনীতি এ মুহূর্তে আমার কাছে ফুল টাইম জিনিস নয়।’

যেহেতু ক্রিকেটের প্রতি মনোযোগের কথা বলেছেন বারবার, তাই প্রশ্ন রাখা হয় বিশ্বকাপে বাংলাদেশের সম্ভাবনা ও প্রস্তুতির ব্যাপারেও। মাশরাফি জানান দলের তরুণ খেলোয়াড়দের ফর্ম আত্মবিশ্বাস দিচ্ছে সবাইকে। পুরো দল একসঙ্গে ঐক্যবদ্ধভাবে লড়তে পারলে ভালো কিছুই সম্ভব বলে মনে করেন তিনি।

টাইগার অধিনায়ক বলেন, ‘তরুণ খেলোয়াড়দের কয়েকজন গত বিশ্বকাপেও খেলেছে, এ বিষয়টি আমাদের আত্মবিশ্বাস দিচ্ছে। তারা যদি ভালো ফর্ম দেখাতে পারে তাহলে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ভালো একটি ম্যাচ আশা করতেই পারি। সাকিব, তামিম, মাহমুদউল্লাহ, মুশফিক এবং মোস্তাফিজরা চাপের মুখে পারফর্ম করে দেখিয়েছে আগেও। ‘

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here